এখনো অজানা করোনা ভাইরাস এর উৎস

0
841

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের উৎস এখনও রহস্যাবৃত বলে মন্তব্য করেছেন চীনের উহানের ইনস্টিটিউট অব ভাইরোলজির (ডব্লিউআইভি) একজন অধ্যাপক।

ইউয়ান জিমিং নামে ওই অধ্যাপক চীনের এ পরীক্ষাগারেই ভাইরাসটি বানানো হয়েছিল বলে যে প্রচার চলছে, সে দাবিও উড়িয়ে দেন। প্রাণঘাতী এ করোনাভাইরাস বানানোর সক্ষমতা কিংবা ইচ্ছা কোনোটাই তাদের নেই বলে জানান ডব্লিউআইভির ন্যাশনাল বায়োসেফটি ল্যাবের এ পরিচালক।

তার মতে, ষড়যন্ত্র তত্ত্বের প্রচারকদের দাবির সঙ্গে এখন পর্যন্ত পাওয়া বৈজ্ঞানিক তথ্যপ্রমাণের সুস্পষ্ট বিরোধ রয়েছে।

রয়টার্সের করা প্রশ্নের লিখিত জবাবে অধ্যাপক ইউয়ান বলেন, নতুন একটি করোনাভাইরাসের নকশা করা ও সেটি বানানোর ইচ্ছা বা সক্ষমতা কোনোটিই ডব্লিউআইভির নেই। সার্স-সিওভি-২র জেনোম থেকে এটি যে মনুষ্যনির্মিত তেমন তথ্যও পাওয়া যায়নি।

মাত্র চার মাসে বিশ্বব্যাপী দুই লাখেরও বেশি মানুষের প্রাণ কেড়ে নেয়া সার্স-সিওভি-২ নামের ভাইরাসটি চীনের উহানেই প্রথম আবির্ভূত হয়েছিল। এ কারণে হুবেই প্রদেশের এ রাজধানীর ইনস্টিটিউট অব ভাইরোলজির ল্যাবেই ভাইরাসটির উৎপত্তি বলে অনেকে দাবি করা শুরু করেন।

ভারতের ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির এক গবেষণা প্রতিবেদনে নতুন করোনাভাইরাসের প্রোটিনের সঙ্গে এইচআইভির ‘অদ্ভূত মিল’ রয়েছে বলে দাবি করা হয়েছিল।

ইনস্টিটিউটটি পরে তাদের ওই প্রতিবেদন প্রত্যাহার করে নিলেও বহুল পঠিত ওই গবেষণা প্রতিবেদনই কোভিড-১৯ এর বিস্তার ও নতুন করোনাভাইরাসের উৎপত্তি সংক্রান্ত ষড়যন্ত্র তত্ত্বের পালে হাওয়া দেয়।

এর মধ্যে নভেল করোনাভাইরাস প্রাকৃতিক কোনো বিষয় নয়, বরং এটি মানুষের তৈরি বলে মন্তব্য করেছেন জাপানের নোবেল বিজয়ী অধ্যাপক তাসুকু হোনজো। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে এমন চাঞ্চল্যকর মন্তব্য করেছেন তিনি।

নোবেল বিজয়ী এ প্রফেসর বলেন, এতদিন পর্যন্ত গবেষণা করে আমি যে অভিজ্ঞতা অর্জন করেছি, তা থেকে আমি শতভাগ নিশ্চিত করে বলতে পারি– করোনাভাইরাস প্রাকৃতিক কোনো বিষয় নয়। এটি বাদুড় থেকেও আসেনি। চীন এ ভাইরাসটি তৈরি করেছে।

Facebook Comments Box